করোনাকালে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর টিপস

শনিবার, জুলাই ১৭, ২০২১

স্বাস্থ্য ডেস্ক : করোনাকালে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোই এখন বড় চ্যালেঞ্জ। কারণ সুস্থ থাকার জন্য রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করা জরুরি। করোনাভাইরাসের সঙ্গে লড়াই করার সক্ষমতা তৈরির জন্য চেষ্টা করতে হবে আপনাকেই। ভয়ঙ্কর এই ভাইরাস থেকে দূরে থাকার জন্য মেনে চলতে হবে কিছু টিপস। মহামারি মোকাবিলায় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর কিছু পরামর্শ দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের দ্য সিইও ম্যাগাজিন-

জিঙ্কের প্রয়োজনীয়তা

সুস্থ থাকার জন্য জিঙ্কের প্রয়োজন রয়েছে। এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়, ভালো রাখে হার্ট এবং চোখ। বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে, জিঙ্ক রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। এটি টি লিম্ফোসাইটস নামক রোগ প্রতিরোধক কোষ তৈরি করে মহামারির থেকে বাঁচতে সাহায্য করে। মাংস, শিমের বিচি ও ঝিনু ইত্যাদিতে জিঙ্ক থাকে সবচেয়ে বেশি।

ভিটামিন ডি গ্রহণ

ভিটামিন ডি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর ক্ষেত্রে অন্যতম সহায়ক। সকালের নরম রোদ, স্যামন ফিশ, সামুদ্রিক সার্ডিন, ডিমের কুসুম ইত্যাদিতে ভিটামিন ডি থাকে। বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে, ভাইরাসজনিত সর্দি-কাশি দূরে রাখতে সাহায্য করে ভিটামিন ডি।

পর্যাপ্ত ঘুম জরুরি

সুস্থ থাকার জন্য পর্যাপ্ত ঘুম জরুরি। প্রতিদিনের কাজগুলো ঠিকভাবে করা এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর ক্ষেত্রে ঘুমের বিকল্প নেই। প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের জন্য দৈনিক সাত-আট ঘণ্টা ঘুম জরুরি। নয়তো শরীরে নানা ধরনের রোগ দেখা দিতে পারে। ন্যাশনাল স্লিপ ফাউন্ডেশনের এক রিপোর্টে দেখা গেছে, পর্যাপ্ত ঘুমের অভাবে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। এতে ঠান্ডা বা ফ্লুতে আক্রান্ত হওয়ার ভয় থাকে।

চিনি ও মদপান বাদ দিতে হবে

অতিরিক্ত চিনিএবং মদপান বাদ দিলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করা সম্ভব সহজেই। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দেওয়া তথ্য অনুযাী, একজন প্রাপ্ত বয়স্ক ব্যক্তির দিনে ১০ চা চামচের বেশি চিনি খাওয়া উচিত নয়। অতিরিক্ত চিনি খেলে উচ্চ রক্তচাপ, প্রদাহ, ওজন বৃদ্ধি, ডায়াবেটিস, ফ্যাটি লিভারের রোগ দেখা দিতে পারে। সেইসঙ্গে হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের ঝুঁকিও বেড়ে যায়।

রসুন খান নিয়মিত

শক্তিশালী অ্যান্টিবায়োটিকের কাজ করে রসুন। এটি ভাইরাসজনিত রোগ প্রতিরোধে সাহায্য করে। এতে থাকে অ্যালিসিন নামক একটি যৌগ, যা আমাদের শরীরে সালফার উত্‍পন্নে সাহায্য করে। এর ফলে বাড়ে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা। বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ হলো, খালি পেটে রসুন খান। এতে পেটে জমে থাকা গ্যাস, পেটের অসুখ দূর হয়। সেইসঙ্গে রক্ত পরিশুদ্ধ করে এবং লিভার ভালো রাখে।