ভারতে ঘণ্টায় ১০ হাজার আক্রান্ত, ৬০ জনের মৃত্যু

বুধবার, এপ্রিল ২১, ২০২১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ে দিশাহারা ভারত। দেশটিতে প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। গত কয়েকদিন ধরে দৈনিক করোনা সংক্রমণ দুই লাখ ছাড়িয়ে যাচ্ছে। বাড়ছে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যাও, মঙ্গলবার যা ছাড়িয়েছে সাড়ে ১৭০০।

এর মধ্যেই নতুন তথ্য সামনে এসেছে। সেটা হচ্ছে- ভারতে প্রতি ঘণ্টায় ১০ হাজারেরও বেশি নতুন করে করোনাক্রান্ত হচ্ছে। আর প্রতি ঘণ্টায় মৃত্যুর সংখ্যাও ছাড়িয়েছে ৬০-এর ঘর।

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত রবিবার প্রতি ঘণ্টায় দেশটিতে করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ১০ হাজার ৮৯৫ জন। সেদিন ৬২ জনের মৃত্যু হয়েছে প্রতি ঘণ্টায়। সোমবার সেই সংখ্যাটা বেড়েছে আরও। সেদিন প্রতি ঘণ্টায় সংক্রমণের সংখ্যা ছিল ১১ হাজার ৪০৮ জন। প্রতি ঘণ্টায় মৃতের সংখ্যাও বেড়ে দাঁড়িয়েছিল ৬৭ জনে।

পরদিন মঙ্গলবার অবশ্য প্রতি ঘণ্টায় সংক্রমণের সংখ্যা সামান্য কমে দাঁড়ায় ১০ হাজার ৭৯৮ জনে। তবে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়ে যায় ৭০-এর ঘর। দৈনিক সাড়ে ১৭০০-এর বেশি মৃত্যু দেখা দিনে দেশটিতে প্রতি ঘণ্টায় মারা গেছে ৭৩ জন।

ভাইরাসের এই ব্যাপক সংক্রমণে ভারতে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা মঙ্গলবারই ছাড়িয়েছে ২০ লাখ। এর মধ্যে ৬২ দশমিক ০৭ শতাংশ রোগীই ৫টি রাজ্যের। সেগুলো হচ্ছে- মহারাষ্ট্র, উত্তরপ্রদেশ, কর্নাটক, ছত্তিশগড় ও কেরালা।

দৈনিক সংক্রমণের মতোই দৈনিক মৃত্যুর তালিকায়ও শীর্ষস্থানে রয়েছে মহারাষ্ট্র।

তবে দৈনিক মৃত্যুর ক্ষেত্রে দিল্লি দ্বিতীয় স্থানে থাকলেও দৈনিক সংক্রমণে মহারাষ্ট্রের পেছনে রয়েছে উত্তরপ্রদেশের নাম। এই পরিস্থিতিতে দিল্লি ও মুম্বাইয়ের বেশ কয়েকটি হাসপাতালে দেখা দিয়েছে প্রবল অক্সিজেন সংকট।

হাসপাতালগুলো বলছে, অবস্থা এমন যে, আর ৩-৪ ঘণ্টার মধ্যেই অক্সিজেনের স্টক শেষ হয়ে যাবে। তখন আর কিছু করার থাকবে না।