আসন্ন আইপিএলের জন্য যে যে ভেন্যু বেছে নিল বিসিসিআই

রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২১

স্পোর্টস ডেস্ক : নির্দিষ্ট কোনও ভেন্যু নয়, চলতি বছরে একাধিক কেন্দ্রে আইপিএল আয়োজনের ভাবনা চিন্তা শুরু করেছিল ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড। এবার মেগা টুর্নামেন্টের জন্য মোট ছ’টি শহরকে বাছাই করা হল। অর্থাৎ এই ছয় শহরের বাইরে আইপিএল হওয়ার সম্ভাবনা নেই।

গত বছর করোনা সংক্রমণের জন্য প্রথমে আইপিএল পিছিয়ে গিয়েছিল। পরে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে জৈব সুরক্ষা বলয়ে থেকে টুর্নামেন্ট খেলেছিলেন মহেন্দ্র সিং ধোনি, বিরাট কোহলিরা। করোনার দাপট আপাতত অনেকখানি নিয়ন্ত্রণে আসায় এবং টিকাকরণ চালু হয়ে যাওয়ায় ঠিক হয়, দেশের মাটিতেই হবে আইপিএল ১৪। মুম্বই ও পুণের পাশাপাশি নক আউটের জন্য মোতেরাকে প্রাথমিকভাবে বেছে নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু মহারাষ্ট্রে নতুন করে করোনা সংক্রমণের কারণে বিকল্প চিন্তা ভাবনা শুরু করতে বাধ্য হয় বিসিসিআই। পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে কলকাতা, চেন্নাই, বেঙ্গালুরু ও হায়দরাবাদের নাম উঠে আসে টুর্নামেন্টের ভেন্যু হিসেবে। তবে এবার জানা গেল, মোট ছ’টি শহর রয়েছে বোর্ডের পছন্দের তালিকায়।

বাছাই করা শহরগুলি হল মুম্বই, চেন্নাই, কলকাতা, আহমেদাবাদ, দিল্লি ও বেঙ্গালুরু। যা খবর, এই ছ’টি শহরেই ঘুরিয়ে ফিরিয়ে হবে ম্যাচের আয়োজন। তবে মুম্বইয়ের ম্যাচের ক্ষেত্রে স্টেডিয়ামে দর্শকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি থাকতে পারে। অন্যান্য ভেন্যুতে ৫০ শতাংশ সমর্থককে গ্যালারিতে বসে ম্যাচ দেখার অনুমতি দেওয়া হতে পারে। তবে ছ’টি শহরে সফর করা নিয়ে বেশ ধন্দে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি। একটি দলের কর্মকর্তাদের কথায়, আগে দু’-তিনটে শহরের মধ্যেই টুর্নামেন্ট সীমাবদ্ধ থাকার পরিকল্পনা করা হয়েছিল। কিন্তু কোভিড পরিস্থিতিতে কতখানি নিরাপদভাবে ছ’টি শহরে যাতায়াত করা সম্ভব হবে, তা নিয়ে ধন্দ রয়েছে।

উল্লেখ্য, আসন্ন ভারত-ইংল্যান্ড ওয়ানডে সিরিজ নিয়ে ইতিমধ্যেই বড়সড় সিদ্ধান্ত নিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকার। জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, মার্চের ২৩ তারিখ থেকে শুরু হতে চলা সিরিজ দর্শকশূন্য মাঠেই খেলতে হবে বিরাটদের। সে রাজ্যে করোনা সংক্রমণের হার ফের উদ্বেগজনক হয়ে ওঠাতেই এই সিদ্ধান্ত। এবার একই কারণে, মুম্বইয়ের পাশাপাশি আরও পাঁচটি শহরকে আইপিএলের জন্য বেছে নিল বোর্ড।