জাবিতে তিন দিনব্যাপী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ‘মুক্তির সংগ্রাম’

রবিবার, মার্চ ২৪, ২০১৯

সাঈদ ইবরাহীম রিফাত, জাবি প্রতিনিধি : জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্রের আয়োজনে ‘মুক্তির আলোয় আলোকিত করি ভূবন’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে ক্যাম্পাসে সোমবার থেকে শুরু হচ্ছে তিন দিনব্যাপী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ‘মুক্তির সংগ্রাম’। ২৫শে মার্চ সকাল থেকে শুরু হয়ে অনুষ্ঠানটি চলবে ২৭শে মার্চ সন্ধ্যা পর্যন্ত।

রবিবার বেলা সাড়ে এগারোটায় ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্রের পরিচালক ও মুক্তিসংগ্রাম সাংস্কৃতিক উৎসবের আহ্বায়ক অধ্যাপক বশির আহমেদ বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাফেটেরিয়ায় শিক্ষক লাউঞ্জে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান।

এছাড়াও তিনি বলেন, জীবন ও সমাজের প্রতিটি ক্ষেত্রে বিশেষ করে নতুন প্রজন্মের মধ্যে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ছড়িয়ে দেয়া, ২৫ মার্চ গণহত্যা দিবস পালন ও আর্ন্তজাতিকভাবে গণহত্যা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি আদায়ের লক্ষ্যে এবং ২৬ মার্চ স্বাধীনতা দিবস উদযাপন উপলক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

এসময় তিনি আরও বলেন, ২৫ মার্চ সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাফেটেরিয়া চত্বরে তিন দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করবেন উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম। অনুষ্ঠানে সাহসী বীর মুক্তিযোদ্ধা ও দেশ বরেণ্য ব্যক্তিত্বদের সম্মাননা স্মারক দেওয়া হবে।

তিন দিনব্যাপি অনুষ্ঠানের প্রথম দিন মুক্তি সংগ্রাম আর্ট ক্যাম্প, স্থির চিত্র প্রদর্শনী, আলোচনা ও সম্মাননা স্মারক প্রদান, মুক্তি সংগ্রামের গান ও কবিতা এবং মুক্তি সংগ্রাম বিষয়ক চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে।

দ্বিতীয় দিন ২৬শে মার্চ বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, মুক্তির সংগ্রাম বিষয়ক চলচ্চিত্র প্রদর্শনী, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, সম্মাননা স্মারক প্রদান ও আলোচনা অনুষ্ঠান।

শেষ দিন ও ২৭ শে মার্চে থাকছে সম্মাননা স্মারক প্রদান ও বিশেষ আলোচনাসভার পাশাপাশি ‘নেকাব্বরের মহাপ্রয়াণ’ চলচ্চিত্র ও সেলিম আল দীন মুক্তমঞ্চে ‘একজন জয়নব বিবি ও ক্রান্তিকাল’ নাটক প্রদর্শন।

অন্যান্যদের মধ্যে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. রাশেদা আখতার, জার্নালিজম এন্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগের সভাপতি শেখ আদনান ফাহাদ, চারুকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এম এম ময়েজ উদ্দিন প্রমূখ।