জার্মানির নির্বাচনে জয়ী মধ্য-বামপন্থি এসপিডি, হেরে গেল মারকেলের দল

সোমবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মারকেলের ক্ষমতাসীন রক্ষণশীল ব্লক সিডিইউ/সিএসইউ’কে সামান্য ব্যবধানে পরাজিত করে পার্লামেন্ট নির্বাচনে বিজয়ী হয়েছে ওলাফ স্কলজের নেতৃত্বে থাকা জার্মানির মধ্য-বামপন্থি সোশ্যাল ডেমোক্রেটস (এসপিডি)। প্রাথমিক ফলাফলে দেখা গেছে সিপিডি পেয়েছে মোট ভোটের শতকরা ২৫.৭ ভাগ। ক্ষমতাসীন সিডিইউ/সিএসইউ ব্লক পেয়েছে শতকরা ২৪.১ ভাগ ভোট।

অন্যদিকে রাজনৈতিক দল দ্য গ্রিনস তাদের ইতিহাসে সবচেয়ে ভাল ফল করেছে। তারা প্রথমবার শতকরা ১৪.৮ ভাগ ভোট পেয়ে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি। এতে আরো বলা হয়েছে, নির্বাচনের ফল যা, তাতে জার্মানিতে একটি নতুন জোট সরকার আসবে তা নিশ্চিত। এর আগেই এসপিডি নেতা ওলাফ স্কলজ বলেছেন, দেশ শাসনের জন্য পরিষ্কার ম্যান্ডেট আছে তার দলের।

যখন তার দল সবাইকে ছাড়িয়ে সামনে এগিয়ে যাচ্ছিল তখন তিনি এ মন্তব্য করেন। তবে বুথফেরত জরিপ একটি ভয়াবহ প্রতিদ্বন্দ্বিতার আভাস দিয়েছিল। শুরু থেকেই এই নির্বাচনকে দেখা হয়েছে অনিশ্চিত হিসেবে। কারণ, কোনো দলই একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাবে এমন পূর্বাভাস কোথাও থেকে পাওয়া যাচ্ছিল না। নির্বাচনের ফলও তাই বলছে। ফলে যে রাজকাহন এখানে শুরু হয়েছে, তাও যেন শেষ হওয়ার নয়। একটি বিষয় পরিষ্কার।

তা হলো নতুন একটি জোট সরকার গঠন না হওয়া পর্যন্ত বিদায় নিচ্ছেন না চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মারকেল। আগামী বড়দিন পর্যন্ত এ জন্য হয়তো অপেক্ষা করে থাকতে হতে পারে। যিনি নতুন চ্যান্সেলর নির্বাচিত হবেন তার কাঁধে থাকবে আগামী চার বছরে ইউরোপের শীর্ষ অর্থনীতিকে নেতৃত্ব দেয়া, ভোটারদের এজেন্ডার মধ্যে শীর্ষে থাকা জলবায়ু পরিবর্তন ইত্যাদি।

গভীর আবেগ দিয়ে ওলাফ স্কলজকে অভিনন্দন জানিয়েছেন তার সমর্থকরা। সবাইকে ছেড়ে শীর্ষে থাকার পর তিনি দর্শকদের উদ্দেশ্যে টেলিভিশন বক্তব্যে বলেছেন, ভোটাররা তাকে একটি সুস্থ, জার্মানির জন্য অভিজাত একটি সরকার গঠনের দায়িত্ব দিয়েছেন।