হাতিয়ায় গোলাগুলির পর ১জন আটক

শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২১

নোয়াখালী: নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলায় ডাকাতদলের সঙ্গে গোলাগুলির পর হাসান নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে বলে দাবি করছে কোস্টগার্ড।

উপজেলার নিঝুম দ্বীপের কাছাকাছি মেঘনা নদীতে গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে এ ঘটনা ঘটে বলে কোস্টগার্ডের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে।

কোস্টগার্ড বলছে, আটক হাসান নদী এলাকার একজন কুখ্যাত ডাকাত। তাঁর বিরুদ্ধে হাতিয়া থানায় একাধিক অভিযোগে মামলা রয়েছে।

এদিকে, গোলাগুলির পর ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় একনলা বন্দুক, দুটি গুলি ও ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত কয়েকটি দেশীয় সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি কোস্টগার্ডের।

কোস্টগার্ডের হাতিয়া স্টেশনের কমান্ডার লেফটেন্যান্ট এ এস এম লুৎফর রহমান বলছেন, গোপন সংবাদের

ভিত্তিতে মেঘনা নদীসংলগ্ন নিঝুম দ্বীপের বাজার এলাকায় গতকাল রাতে অভিযান চালায় কোস্টগার্ড।

এ সময় ডাকাতদল কোস্টগার্ডের উপস্থিতি টের পেয়ে কয়েকটি গুলি ছোড়ে। পরে কোস্টগার্ড পাঁচটি গুলি ছোড়ে এবং ডাকাতদলটিকে ধাওয়া করে।

লুৎফর রহমানের দাবি, গোলাগুলির সময় কোনো হতাহতের ঘটনা না হলেও ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

এ সময় হাসান নামের এক ডাকাতকে আটক করা হয়। তাঁর বিরুদ্ধে হাতিয়া থানায় একাধিক অভিযোগে মামলা

রয়েছে। পরে অস্ত্র ও আটক হাসানকে হাতিয়া থানায় পুলিশ হেফাজতে পাঠানো হয়েছে।