হাতকড়া নিয়ে পালানো হত্যাসহ ৮ মামলার আসামি গ্রেফতার

শুক্রবার, মার্চ ৫, ২০২১

ঢাকা : আদালতে তোলার সময় কৌশলে হাতকড়া খুলে পালিয়ে যান খুন ও ডাকাতিসহ ৮ মামলার আসামি হারুন অর রশিদ সুমন। পালিয়ে যাওয়ার পর তাকে ফের গ্রেফতার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ।

ভোলার লালমোহনের হারুন অর রশিদ সুমন। মায়ের সাথে দীর্ঘদিন মিসরে থাকলেও, দেশে ফিরে মাদক, হত্যা ডাকাতিসহ নানা অপরাধে হাত পাকানো সুমনের কিশোর গ্যাং নিয়েও তদন্তে নেমেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। আশপাশের মানুষকে নিয়ন্ত্রণে ভয়ের পরিবেশ তৈরি করতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ওয়ালে দিয়ে রাখত অবৈধ অস্ত্র ও নির্যাতনের ছবি।

গেল ২৩ ফেব্রুয়ারি কেরানীগঞ্জ কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে আদালতে নেওয়ার সময় প্রিজন ভ্যান থেকে নামার সময় কৌশলে হাতকড়া খুলে পালিয়ে যান হত্যা, ডাকাতিসহ অন্তত ৮ মামলার এ আসামি সুমন। এ ঘটনায় সাময়িক বরখাস্ত হন ৮ পুলিশ সদস্য। মামলা হয় কোতোয়ালি থানায়।

কৌশলে পালিয়ে যাওয়ার পর টঙ্গী, এরশাদনগর ও চান্দুরা এলাকায় অবস্থান করে পলাতক আসামি সুমন। সবশেষ এক সপ্তাহ যাবৎ অবস্থান করছিলো গাজীপুরের সোহাগ পল্লী মার্কেটের পাশে বনের ভেতর। প্রযুক্তির সহায়তায় শেষ পর্যন্ত কুখ্যাত অপরাধী সুমনকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা পুলিশ।

তদন্তে নেমে তার বিরুদ্ধে হত্যা, ডাকাতিসহ অন্তত ৮টি মামলার খবর পেয়েছে পুলিশ। এ ছাড়া সুমনের ফেইসবুক অ্যাকাউন্ট তদন্ত করে সাধারণ মানুষকে নির্যাতন, অবৈধ অস্ত্রসহ কিশোর গ্যাংয়ের সন্ধান পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের লালবাগ বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার মো. রাজীব আল মাসুদ।