কক্সবাজার জেলা বিএনপির হালচাল!!

মঙ্গলবার, জানুয়ারি ১৯, ২০২১

ছাত্র, যুব রাজনীতির পথবেয়ে ৯০ দশকের গনতান্ত্রিক আন্দোলনের সাহসী নেতারা আজ বিএনপিতে কোনঠাসা!

উপকূলীয় প্রতিনিধি : অনেকটা দায়সারা গুছের, ঢিলেঢালা অবৈধ সরকারের ম্যানেজ করে ঘরোয়া রাজনীতির অংশবিশেষ কক্সবাজার জেলা বিএনপি! এখানে নেই সরকারের অবৈধ কর্মকান্ডের প্রতিবাদ কিংবা বিক্ষোভ। আজ জেলা বিএনপির কমিটির মেয়াদ ১২ বছর যুবদল, ছাত্রদলে ও একই অবস্থা। বর্তমান কমিটির নেতাদের একেকজনের দায়িত্বশীল হওয়ার বয়স একযুগের ও বেশী। চলমান স্থানীয় সরকার নির্বাচনের মনোনয়নের ক্ষেত্রে বেঁচা বিক্রির হাঠ বসে জেলা বিএনপির কার্যালয়ে।

বিভিন্ন মেয়াদে বিএনপি সরকারে থাকা অবস্থায় কিছু সংখ্যক নেতা পর্যাপ্ত অর্থবৃত্তের মালিক হওযার পর সহায় সম্পত্তি ধারন অব্যাহত রাখার জন্য আওয়ামীলীগ জেলা নেতাদের সাথে সখ্যতা সৃষ্টি করে নির্বিঘ্নে জীবন যাপন করছেন।

এই সময়ের মধ্যে ৯০ দশকে তুমুল গনতান্ত্রিক আন্দোলনে অভিজ্ঞ সিপাহিগন আজ মুখথুবড়ে পড়ে রাজনৈতিক ময়দান থেকে হারিয়ে যেতে বসেছেন। রাজনীতিতে দূর্দান্ত দাপট স্বৈরশাসকের মোকাবেলাকারীগনদের মধ্যে সর্বজনাব রাশেদ মোহাম্মদ আলী (কক্সবাজার শহর) হামিদ উদ্দিন ইউসুফ গুন্নু ( কক্সবাজার শহর) এডভোকেট আবদুল্লাহ (কক্সবাজার শহর) রেজাউল করিম (মহেশখালী) কাউন্সিলর জামশেদ (কক্সবাজার শহর) অধ্যাপক আকতার চৌধুরী (কক্সবাজার শহর) এডভোকেট রফিকুল ইসলাম (কক্সবাজার শহর) এডভোকেট বদরুল হুদা সিদ্দিকী( কক্সবাজার শহর) আলী আক্কাস (কক্সবাজার শহর) সেলিম নেওয়াজ( কক্সবাজার শহর) মো.আবদুল্লাহ (টেকনাফ) বোরহান উদ্দিন রানা (কক্সবাজার শহর) সাফায়েত আজিজ রাজু (পেকুয়া) এডভোকেট খোরশেদ আলম (কুতুবদিয়া) আবদুরহিম বিকম (মহেশখালী) এডভোকেট ফারুক ইকবাল (মহেশখালী) শফিউল আলম (মহেশখালী) প্রমুখ।