যুক্তরাষ্ট্রকে উপেক্ষা করেই চীন-ইরান সামরিক চুক্তি

সোমবার, জুলাই ১৩, ২০২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মার্কিন নিষেধাজ্ঞার হুমকি উপেক্ষা করেই ইরানের সঙ্গে বড় পরিসরে নিরাপত্তা ও অর্থনৈতিক অংশীদারিত্ব গড়ে তুলতে একটি খসড়া চুক্তি করেছে চীন। মার্কিন সংবাদমাধ্যম দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস এই প্রস্তাবিত চুক্তির ১৮ পাতার বিস্তারিত বিবরণ হাতে পেয়েছে বলে দাবি করেছে।

নিউ ইয়র্ক টাইমসের ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, যদি চীনের সঙ্গে এই চুক্তি কার্যকর হয়, তাহলে ইরানকে একঘরে করার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসনের ‘আগ্রাসী’ প্রচেষ্টাও ব্যর্থ হবে।

প্রস্তাবিত এ চুক্তির আওতায় ইরানের ব্যাংকিং, টেলিকমিউনিকেশন, বন্দর, রেলওয়েসহ আরও বেশ কিছু প্রকল্পে চীনের শত শত কোটি ডলার বিনিয়োগের পথ খুলে যাবে।

চুক্তির আওতায় ইরানে বিপুল অঙ্কের অর্থ বিনিয়োগের বিনিময়ে চীন আগামী ২৫ বছর বিশেষ মূল্যছাড়ে ইরান থেকে আমদানি করতে পারবে। আবার সামরিক চুক্তির আওতায় ওই অঞ্চলে চীনের পদচারণার পাশাপাশি যৌথ প্রশিক্ষণ, মহড়া, যৌথ গবেষণা, অস্ত্র উন্নয়ন এবং গোয়েন্দা তথ্য আদান-প্রদানের দ্বার খুলে যাবে।

নিউ ইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৬ সালে প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং যখন ইরান সফর করেন তখনই এই অংশীদারিত্বের প্রস্তাব দিয়েছিলেন। সেই প্রস্তাব চলতি জুনে অনুমোদন করেছে ইরানের মন্ত্রিসভা।

তবে বিশ্লেষকরা মনে করছেন, এই চুক্তি কার্যকর হলে চীনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্কের আরও অবনতি হবে। দুই দেশের এ সখ্যতায় যুক্তরাষ্ট্রের উদ্বেগও বাড়বে। তাছাড়া, ইরানের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্র প্রশাসনের আগ্রাসী নীতিও ধাক্কা খাবে।