যে কারণে ভুলেও কোনো শিল্পীকে বিয়ে করবেন না

শুক্রবার, মে ২৯, ২০২০

বিয়ে প্রতিটি মানুষের জন্যই জরুরি। বিয়ে ছাড়া কখনোই একজন মানুষের জীবন পূর্ণতা পায় না। তাছাড়া একাকীত্ব দূর করতেও একজন জীবন সঙ্গী ভীষণ প্রয়োজন। সেই মানুষটি অবশ্যই হওয়া চাই মনের মতো। যার সঙ্গে সুখ, দুঃখ, ভালোবাসা, অনুভূতি, রাগ, অভিমান ইত্যাদি সব কিছুই ভাগাভাগি করে নেয়া যায়। যদি জীবন সঙ্গী বাছাইয়ে ভুল করে বসেন, তবেই বাড়বে বিপদ। কারণ ভুল মানুষের সঙ্গে জীবন কখনোই সুখে কাটানো সম্ভব হয় না। বরং দুঃখের পরিমাণ আরও বেড়ে যায়। তাই সতর্ক থাকুন জীবন সঙ্গী বাছাইয়ের ক্ষেত্রে।

বিয়ের জন্য জীবনসঙ্গী নির্বাচন করা জীবনের একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। জীবনের একটি সময়ে প্রতিটি মানুষকেই কারো না কারো সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে হয়। বিয়ের মাধ্যমে দুইজন মানুষ সারাজীবন একসাথে চলার প্রতিশ্রুতি নেয়। উপযুক্ত এবং সঠিক জীবনসঙ্গী খুঁজে নেয়া বিবাহিত জীবন সুখময় হওয়ার পূর্বশর্ত। এই সময়ে করা যে কোন ভুলের মাশুল আপনাকে সারাজীবন ভোগ করে যেতে হবে। সুতরাং, আপনাকে অবশ্যই এটি মাথায় রাখতে হবে যে এটিই আপনার জীবনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত যেখানে ভুল করার কোন সুযোগই নেই।

কথা সাহিত্যিক ও সাংবাদিক আনিসুল হক এর ফেসবুক পেজ থেকে নেয়া তথ্য অনুযায়ী, একজন শিল্পীকে বিয়ে করা ভুল সিদ্ধান্ত। হোক সে নারী কিংবা পুরুষ। চলুন জেনে নেয়া যাক এর পেছনের কারণগুলো-

> শিল্পীরা পুরুষ বা নারী যেই হোক না কেন, গর্ভবতী নারীর মতোই মুডি হয়। যাকে মানিয়ে চলা কঠিন হয়ে পড়ে।

> শিল্পীরা ভীষণ একঘেয়ে হয়ে থাকে। উদাহরণসরূপ বলা যায়, তারা একটা পাতার দিকে তাকিয়ে থেকে অর্ধেকটা দিন কাটিয়ে দিতে পারে।

> ইচ্ছে হলেও আপনি তাদের সারপ্রাইজ দিতে পারবেন না। কারণ আপনার কল্পনার চেয়েও তারা বেশি সৃজনশীল।

> শিল্পীদের দেখলে মনে হতে পারে যে, তারা খুব সরল সোজা। কিন্তু এখানেই আপনি ভুল করে বসবেন। কারণ তাদের মাথা রকেট সায়েন্সের চেয়েও বেশি জটিল হতে পারে।

> আপনি যদি খামখেয়ালি স্বভাবের হন, ডিভোর্সের জন্য প্রস্তুত থাকুন। কারণ খামখেয়ালিপনা তাদের খুবই অপছন্দের।

> শিল্পীরা সবসময় কল্পনার জগতে থাকেন। তাদের বাস্তব দুনিয়ায় নামিয়ে আনা এক প্রকার অসম্ভব।

> আপনি ইচ্ছে করলেই তাদের প্রভাবিত করতে পারবেন না। কারণ ওই ব্যাপারের রসায়ন তাদের ভালো জানা।

> তারা কম কথা বলেন এবং তাই পছন্দ করেন। আশ্চর্যের ব্যাপার হলো, সারাজীবনের তিনভাগের দুইভাগ তারা কথা না বলে কাটিয়ে দেয়।

> জীবনের অর্ধেকটা সময় তারা তাদের স্টুডিওতে কাটিয়ে দেয়।

> তারা যদি সাধক শিল্পী হয়ে থাকেন, তাহলে আপনি তার দ্বিতীয় প্রেম। কারণ তাদের প্রথম প্রেম হলো শিল্প।