জ্বর-গলাব্যথা-সর্দি নিয়ে শ্বশুরবাড়িতে জামাই, পালালেন শাশুড়িসহ ৫ জন

বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ৯, ২০২০

দিনাজপুর : রাতে শরীরে জ্বর নিয়ে নারায়ণগঞ্জ থেকে শ্বশুরবাড়িতে আসেন মেয়ের জামাই (৩৮)। আর সকালেই ওই বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যান শাশুড়িসহ বাড়ির ৫ সদস্য। এ ঘটনা এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে সবার মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

বুধবার সকালে ওই জামাইসহ ৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করেছে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা। এছাড়া আশপাশের ৪ বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে।

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলায় বুধবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. সোলায়মান হোসেন মেহেদি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

স্বাস্থ্য কর্মকর্তা বলেন, শরীরে জ্বর, গলাব্যথা, সর্দি নিয়ে ওই ব্যক্তি (৩৮) সোমবার রাতে নারায়ণগঞ্জ থেকে তার শ্বশুরবাড়িতে আসেন। স্থানীয় গ্রামবাসীর দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে ওই ব্যক্তির নমুনা সংগ্রহ করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এছাড়াও করোনা সন্দেহে উপজেলার বেশ কয়েকটি স্থান থেকে ৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে এবং ওই বাড়ির লোকগুলোকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।

একই দিনে নবাবগঞ্জ উপজেলায় করোনা সন্দেহে এক ব্যক্তির নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে এবং ওই ব্যক্তির বাড়িতে থাকা সবাইকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলায়মান হোসেন মেহেদি বলেন, ইতোমধ্যে বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে ৩ জন রোগী ভর্তি রয়েছেন। তাদের নমুনা সংগ্রহ করে করেনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছিল। রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।