চট্টগ্রামে হঠাৎ রাস্তায় মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়লেন পোশাকশ্রমিক ও রিকশাচালক

সোমবার, এপ্রিল ৬, ২০২০

চট্টগ্রাম : চট্টগ্রামে নগরীর ঈদগাহ এলাকা থেকে বায়েজিদের কর্মস্থলে যাওয়ার পথে টাইগারপাস এলাকায় মৃত্যুবরণ করেছেন গামের্ন্টস কর্মী মো. সেলিম উদ্দীন। অন্যদিকে নগরের চকবাজার থানাধীন অলি খাঁ মসজিদ মোড়ে সড়কের ওপর প্রাণ গেছে পঞ্চাশোর্ধ্ব এক রিকশাচালকের। তার নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

সোমবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে টাইগারপাস মোড়ে সেলিম ও সকাল ৮টার দিকে অজ্ঞাত পরিচয় রিকশাচালক সড়কের উপর মারা যান।

জানা গেছে, গার্মেন্টস কর্মী মো. সেলিম উদ্দীন সাতকানিয়ার উত্তর মাদার্শা এলাকার মো. রহমত আলীর ছেলে। তিনি বায়েজিদের তারা গেইট এলাকার জিরাত ফ্যাশনের সহকারী ম্যানেজার (মার্চেন্ডাইজিং) হিসেবে কাজ করতেন। পায়ে হেঁটে তিনি কর্মস্থলে যাচ্ছিলেন।

সেলিম উদ্দীনের ভাতিজা মো. রায়হান বলেন, সকালে বাসা থেকে হাসিমুখে কর্মস্থলের উদ্দেশে বের হন সেলিম। ঈদগাহ এলাকার বাসা থেকে বায়েজিদের তারা গেইটে কর্মস্থলে যাওয়ার কথা ছিল তার। খবর পাই পথেই তিনি রাস্তায় পড়ে যান। ঘটনাস্থলেই তিনি মারা গেছেন।

খুলশী থানার উপ-পরিদর্শক এসআই মো. দেলোয়ার বলেন, রাস্তার উপর এক যুবক পড়ে রয়েছে খবর পেয়ে সেখানে যাই। আমরা যাওয়ার আগেই তার স্বজনরা এসেছিল। তারা তাকে হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে খবর নিয়ে জানতে পারি তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে পথে লুটিয়ে পড়ে মারা গেছেন।

অপরদিকে সোমবার সকালে জীবিকার তাগিদে রিকশা নিয়ে বের হন অজ্ঞাত পরিচয় ওই রিকশাচালক। রিকশা চালিয়ে তিনি চকবাজারের অলি খাঁ মসজিদ মোড়ে এসে হঠাৎ খারাপ লাগছে বলেই মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। পরে উপস্থিত মানুষজন থানায় খবর দেয়। মৃত ব্যক্তির পাশে কিছু টাকা-পয়সা পড়ে ছিল। করোনার ভয়ে কেউ ওই রিকশাচালকের আশপাশে যায়নি। পুলিশ আসার আগ পর্যন্ত তিনি মাটিতেই পড়ে ছিলেন।

চকবাজার থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. রিয়াজ উদ্দীন চৌধুরী জানান, অলি খাঁ মসজিদের সামনে একজন রিকশাচালক মাটিতে অজ্ঞান অবস্থায় পড়ে আছেন খবর পাই। পরে তাকে উদ্ধার করে চমেক হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ধারণা করা হচ্ছে, হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তিনি মৃত্যুবরণ করেছেন।