অফিস-বাড়ি কোয়রান্টিন সেন্টারের জন্য ছেড়ে দিলেন শাহরুখ

রবিবার, এপ্রিল ৫, ২০২০

বিনোদন ডেস্ক : করোনা মোকাবিলায় একগুচ্ছ অনুদানের কথা ঘোষণা করেছিলেন শুক্রবারই। এ বার নিজের ব্যক্তিগত অফিসকে জনসাধারণের জন্য কোয়রান্টিন সেন্টার ঘোষণা করে আবারও মানবিকতার নজির গড়লেন শাহরুখ খান। শনিবার (৪ এপ্রিল) সকালে গ্রেটার মুম্বই পৌরসভার পক্ষ থেকে একটি টুইট করা হয়। সেই টুইটে শাহরুখ এবং তাঁর স্ত্রীকে এই চরম দুঃসময়ে মানুষের পাশে এই ভাবে থাকার জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে লেখা হয়, ‘শাহরুখ এবং গৌরী খান তাঁদের ব্যক্তিগত চার তলা অফিসটি শিশু, মহিলা এবং বয়স্কদের কোয়রান্টিন সেন্টার হিসেবে দান করার মতো যে পদক্ষেপ নিলেন তা নিঃসন্দেহে সুচিন্তার প্রতিফলন।’

অক্ষয়-আয়ুষ্মান সহ তাবড় বলিস্টারেরা করোনা মোকাবিলায় অর্থদান করলেও শাহরুখ কেন কানাকড়িও খরচ করছেন না, তা নিয়ে কিছু দিন ধরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় নানা ধরনের মন্তব্য উড়ে আসছিল। যাবতীয় সমালোচনা, ট্রোলিংকে কার্যত চুপ করিয়ে দিয়ে শুক্রবার শাহরুখ সোশ্যাল মিডিয়ায় বিস্তারিত ভাবে জানান, কোন কোন জায়গায় কী কী দান করেছে তাঁর প্রযোজনা সংস্থা রেড চিলিস এন্টারটেনমেন্ট, তাঁর আইপিএল দল নাইট রাইডার্স এবং এনজিও মীর ফাউন্ডেশন। জানা যায়, প্রধানমন্ত্রীর ফান্ডে কলকাতা নাইট রাইডার্স, আইপিএল ফ্যাঞ্চাইজির মালিক গৌরী খান আর শাহরুখ খান, জুহি চাওলা মেটা, জয় মেটা অর্থ দান করবেন।

মহারাষ্ট্র মুখ্যমন্ত্রী ত্রাণ তহবিলে রেড চিলিস এন্টারটেনমেন্ট টাকা দেবে। স্বাস্থ্য সুরক্ষা পরিষেবা প্রদানকারী মীর ফাউন্ডেশন এবং কেকেআর যৌথ ভাবে পশ্চিমবঙ্গ আর মহারাষ্ট্র সরকারের সঙ্গে কাজ করে ৫০,০০০ পিপিই কিট দেবে। মীর ফাউন্ডেশন আর এক সাথ আর্থ ফাউন্ডেশন মুম্বইয়ের ৫৫০০ পরিবারকে এক মাসের খাবার দেবে। নতুন করে ব্যবস্থা করা হবে রান্নাঘরের, যেখানে রোজ ২০০০ মানুষের রান্না করা হবে। এই রান্না পৌঁছে দেওয়া হবে সেই সব মানুষের কাছে যারা ঠিক মতো খাবার পাচ্ছেন না। রোটি ফাউন্ডেশন ইতিমধ্যে গরীব মানুষদের কাছে মুম্বই পুলিশের সাহায্যে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে। এ বার শাহরুখের মীর ফাউন্ডেশন এর সঙ্গে হাত মিলিয়ে দশ হাজার মানুষের জন্য এক মাস ধরে তিন লাখ খাবারের প্যাকেট দেবে। মীর ফাউন্ডেশন দিল্লির প্রান্তে থাকা ২৫০০ দিন মজুরদের জন্য এক মাস চাল, ডাল, সব্জি সরবরাহ করবে। মীর ফাউন্ডেশন অ্যাসিড সারভাইভারদের জন্য মাসিক ভাতা দেওয়ার সিধান্ত নিয়েছে উত্তরপ্রদেশ, বাংলা, বিহার, ওড়িশার জন্য। শাহরুখের এই অভিনব উদ্যোগে ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় নেমেছে প্রশংসার ঢল। সাধে কি তাঁকে ‘কিং খান’ বলা হয়?