করোনা আক্রান্ত সন্দেহে একই পরিবারের ৪ জন আইসোলেশনে, হোম কোয়ারেন্টাইনে ১১

রবিবার, মার্চ ২৯, ২০২০

জয়পুরহাট : জয়পুরহাটের কালাইয়ের নান্দাইলদীঘিতে করোনা ভাইরাসের লক্ষণ দেখা দেয়ায় এক যুবকসহ ওই পরিবারের ৪ জন সদস্যকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। শনিবার তাদের আক্কেলপুর

করোনা আক্রান্ত সন্দেহে একই পরিবারের ৪ জন আইসোলেশনে, হোম কোয়ারেন্টাইনে ১১

জয়পুরহাট : জয়পুরহাটের কালাইয়ের নান্দাইলদীঘিতে করোনা ভাইরাসের লক্ষণ দেখা দেয়ায় এক যুবকসহ ওই পরিবারের ৪ জন সদস্যকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। শনিবার তাদের আক্কেলপুর উপজেলার গোপীনাথপুর হেলথ এন্ড টেকনোলজি ইন্সটিটিউটে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে। একই সঙ্গে ওই পরিবারের সংস্পর্শে আসা ১১ জনকে পরবর্তী সিদ্ধান্ত না দেয়া পর্যন্ত হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কালাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আশিক আহমদ জেবাল বাপ্পী জানান, কালাইয়ের নান্দাইলদীঘির ওই যুবক পোল্ট্রি ব্যবসার সুবাদে বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত ব্যবসায়ীর সংস্পর্শে আসতে পারে এবং তার শরীরে করোনা ভাইরাসের লক্ষণ দেখা দেয়ায় তাকেসহ তার পরিবারের ৪ সদস্যকে গোপীনাথপুর হেলথ এন্ড টেকনোলজি ইন্সটিটিউটে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে এবং তাদের সংস্পর্শে আসা ১১ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে দেয়া হয়েছে। তবে সে বিদেশফেরত নয়।

এদিকে জয়পুরহাটের সিভিল সার্জন ডা: সেলিম মিঞা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, করোনা সন্দেহে আইসোলেশনে রাখা ওই যুবকের নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআরে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট এলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

গোপীনাথপুর হেলথ এন্ড টেকনোলজি ইন্সটিটিউটে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে। একই সঙ্গে ওই পরিবারের সংস্পর্শে আসা ১১ জনকে পরবর্তী সিদ্ধান্ত না দেয়া পর্যন্ত হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কালাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আশিক আহমদ জেবাল বাপ্পী জানান, কালাইয়ের নান্দাইলদীঘির ওই যুবক পোল্ট্রি ব্যবসার সুবাদে বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত ব্যবসায়ীর সংস্পর্শে আসতে পারে এবং তার শরীরে করোনা ভাইরাসের লক্ষণ দেখা দেয়ায় তাকেসহ তার পরিবারের ৪ সদস্যকে গোপীনাথপুর হেলথ এন্ড টেকনোলজি ইন্সটিটিউটে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে এবং তাদের সংস্পর্শে আসা ১১ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে দেয়া হয়েছে। তবে সে বিদেশফেরত নয়।

এদিকে জয়পুরহাটের সিভিল সার্জন ডা: সেলিম মিঞা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, করোনা সন্দেহে আইসোলেশনে রাখা ওই যুবকের নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআরে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট এলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।