হুমকি-ধামকি উপেক্ষা করে ভোটের দিনে মাঠে থাকবে নেতাকর্মীরা: ইশরাক

বুধবার, জানুয়ারি ২৯, ২০২০

ঢাকা : ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী ইশরাক হোসেন বলেছেন, ‘বিএনপির নেতাকর্মীরা ভোটের মাঠে সকল ধরনের দায়িত্ব পালন করবে। হামলা-মামলা হুমকি-ধামকি উপেক্ষা করে যাতে ভোট দিতে পারেন সেজন্য আমাদের কর্মীরা মাঠে থাকবে।’

তিনি বলেন, ‘ধানের শীষের পক্ষে একটি গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। ১ ফেব্রুয়ারিতে যে নির্বাচন হবে সেখানে মুক্তির বিজয় পূর্ণরূপে প্রতিষ্ঠিত হবে। আমরা প্রচারণার প্রায় শেষ পর্যায়ে এসে পৌঁছেছি। আমরা ইতিমধ্যে প্রচার-প্রচারণা গিয়ে কি কি বাধার সম্মুখীন হয়েছি সেগুলো আপনাদের সামনে তুলে ধরা হয়েছে। প্রার্থী হিসেবে আমি আর অভিযোগের দিকে যেতে চাই না। আমি সকল ভোটারদেরকে বলব আপনারা আগামী ১ ফেব্রুয়ারি নির্ভয় সাহস নিয়ে ভোট দিতে ভোট কেন্দ্রে যাবেন।’

বুধবার (২৯ জানুয়ারি) দুপুরে ইশরাক হোসেনের বাসভবনে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

ইশরাক বলেন, ‘আমরা কিন্তু অনেক জায়গা থেকে পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতা পেয়েছি, কিন্তু কিছু কিছু জায়গায় কিছু অসাধু পুলিশ কর্মকর্তা রয়েছে। যেমন ওয়ারী থানার কর্মকর্তা দলীয় ভূমিকা পালন করছে, এখানে আমাদের নেতাকর্মীদেরকে শূন্য করে দেয়ার জন্য মামলা করে নানাভাবে হয়রানি করছে।’

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘এই প্রচারণায় আপনারা মানুষের জন্য সত্য সংবাদ সংগ্রহকালে জীবনের ঝুঁকি পর্যন্ত নিতে হয়েছে। আপনাদেরকে আমি সত্যটুকু তুলে ধরার জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই। আপনারা এখন মানুষের জন্য সবচাইতে ভরসার জায়গা। এ কয়দিন আপনারা যেভাবে পরিশ্রম করেছেন, আমি আশা করব ভোটের শেষ পর্যন্ত আপনারা মানুষের জন্যই সত্য প্রকাশের জন্য কাজ করবেন।’

আমাদের বিরুদ্ধে সরকারি কিছু পোর্টাল নানা ধরনের অপপ্রচার চালাচ্ছে। জনগণ এগুলো গ্রহণ করেনি সেগুলো তাঁরা হাস্যরস হিসেবে নিয়েছে বলেও জানান অবিভক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের নির্বাচিত সর্বশেষ মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, ভাইস-চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, নিতাই চন্দ্র রায় ,যুগ্ম-মহাসচিব হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম প্রমুখ।