বাংলাদেশের পোষাক খাত থেকে গেল বছরের রপ্তানী আয় ৩৪ বিলিয়ন ডলার

শনিবার, জানুয়ারি ২৫, ২০২০

জাহিন সিংহ, সাভার থেকে : বাংলাদেশের পোশাক কারখানাগুলো থেকে গেল অর্থবছরে প্রায় ৩৪ বিলিয়ন ডলার রপ্তানী আয় হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ পোশাক রপ্তানী প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান বিজিএমইএর সভাপতি ড.রুবানা হক।

শনিবার দুপুরে সাভারের আশুলিয়ার দত্তপাড়া এলাকায় ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির অষ্টদশ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর সমাপনী অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে একথা জানান তিনি।

বিজিএমইএর প্রেসিডেন্ট ড.রুবানা হক বলেন, বাংলাদেশে পোশাক কারখানাগুলোতে বর্তমানে কাজ করছে প্রায় চল্লিশ লক্ষ শ্রমিক। শ্রমিককে আরো পারদর্শী করার জন্য ইন্ডাষ্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং এর প্রয়োজন রয়েছে। শ্রমিকের জীবনমান উন্নয়নের জন্য মজুরী বাড়ানো হলেও তাদের জীবনযাত্রার পরিবর্তন হয়না। কারণ যানবাহনের খরচ, ঘর ভাড়ার বৃদ্ধি ও দ্রব্যমূল্যেও বেড়ে যায় ফলে শ্রমিকরা ওই ভাবে উপকৃত হন না।

তিনি আরও বলেন, আগামী অর্থ বছরে বাজেটে প্রস্তাব রাখবো শ্রমিকদের জন্য আবাসন, গৃহায়ণ ও খাদ্যে এই তিন খাতে সরকার যেন একটু মনোযোগী হন। কারণ সরকারের একটা বড় সামাজিক খাত রয়েছে এ বছর সেটা ৭৪ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছেন। আমরা আশাকরি আরও দুই’শ কোটি টাকা শ্রমিকদের জন্য বরাদ্দ রাখা হলে শ্রমিকদের জন্য কিছুটা সাশ্রয় হবে।

বিজিএমইএর সভাপতি এসময় আরো বলেন, আমাদের শ্রমিকরা এখন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ছেন এবং এশিয়ান ইউনিভার্সিটিতে আগামী নয় মে প্রায় দশজন শ্রমিক গ্যাজুয়েট করছেন এটি ইতিহাস সৃষ্টি করবে এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকীতে গ্যাজুয়েট করায় সেটা আমাদের জন্য অহংকারের বিষয়।

অনুষ্ঠানে সাবেক সেনাবাহিনী প্রধান আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক, ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটির ট্রাষ্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ড.সবুর খান, উপাচার্য অধ্যাপক ড.ইউসুফ মাহবুবুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এর আগে ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটিতে ঢাকা সিটির প্রয়াত মেয়র আনিসুল হকের নামে একটি ভবন উদ্বোধন করেন বিজিএমইএর সভাপতি।