লেবাননের নতুন প্রধানমন্ত্রী হাসান দিয়াব

বুধবার, জানুয়ারি ২২, ২০২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : সংঘর্ষ ও সংঘাতের প্রায় তিন মাস পর মধ্যপ্রাচ্যের দেশ লেবাননে নতুন সরকার গঠিত হয়েছে। এতে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন দেশটির সাবেক শিক্ষামন্ত্রী হাসান দিয়াব। তিনি দেশটির রাজনৈতিক ও আধাসামরিক প্রতিষ্ঠান হিজবুল্লাহ সমর্থিক ব্যক্তি।

এক মাসেরও বেশি সময় ধরে আলোচনার পরে একমত হওয়া মন্ত্রিসভার তালিকায় প্রেসিডেন্ট মিশেল আওন স্বাক্ষরিত সদস্যদের নাম পড়ে শোনান দেশটির এক সরকারি কর্মকর্তা।

রয়টার্স জানিয়েছে, প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী হাসান দিয়াবের নেতৃত্বে ২০ সদস্যের মন্ত্রিসভায় অর্থমন্ত্রী করা হয়েছে গাজী ওয়াজনীকে। এদিকে ডিয়াবের নতুন সরকারকে ‘একটি উদ্ধারকারী দল’ বলেছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী সাদ হারিরি।

গত মাসে হিজবুল্লাহ এবং এর সহযোগীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক হাসান দিয়াকে সাদ হারিরির স্থলাভিষিক্ত করতে বেছে নিয়েছিল, কিন্তু তারা মন্ত্রিসভার প্রস্তাবে সম্মত হতে পারেনি। সম্প্রতি বিক্ষোভ সহিংসতায় মোড় নেয়ায় বিষয়টি চাপাচাপিতে পরিণত হয়েছিল।
হাসান দিয়াবকে প্রধানমন্ত্রী ঘোষণার একদিন আগে একটি টুইট করেন দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী সাদ হারিরি।

সোমবার টুইটে তিনি লেখেন, লেবাননে জরুরি ভিত্তিতে একটি নতুন সরকারের দরকার যা দেশকে তার ‘ধসের চক্র’ থেকে বের করে আনতে পারে।

একদিন পর দিয়াবের নতুন সরকারকে ‘একটি উদ্ধারকারী দল’ বলে আখ্যা দেন তিনি। প্রসঙ্গত লেবাননে বিক্ষোভ, সংঘর্ষ লেগেই রয়েছে। দেশটির রাজধানী বৈরুতে চলতি সপ্তাহে সংঘর্ষে ১৬০ জনেরও বেশি মানুষ আহত হয়েছে। বিক্ষোভকারীরা সংসদ ভবনে হামলা চালানোর চেষ্টা করে এবং এটিএম বুথ, ব্যাংক, অফিস ও দোকান ভাঙচুর করে।

সরকার গঠনের পর পরিস্থিতি শান্ত করে আনাই হাসান দিয়াবের প্রধান চ্যালেঞ্জ বলে দেখা হচ্ছে।