বন্ধ হচ্ছে জার্মানির সব পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র

সোমবার, ডিসেম্বর ২, ২০১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : জার্মানিতে সব পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। কিন্তু বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলোর ২৮ হাজার ঘনমিটারের পারমাণবিক বর্জ্য (যা যুক্তরাজ্যের লন্ডনের বিগ বেন ক্লক টাওয়ারের মতো ছয়টি স্থাপনার সমান) কীভাবে ধ্বংস করা হবে, তা নিয়ে দেশটির বিজ্ঞানীরা চিন্তায় পড়েছেন।

সিএনএন বলছে, বর্তমানে জার্মানিতে সচল রয়েছে ৭টি পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র। জাপানের ফুকুশিমা বিপর্যয়ের পর নিরাপত্তা শঙ্কায় ভুগছে দেশটি। মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর এই বিপুল বর্জ্য কোথায় নিরাপদে ব্যবস্থাপনা করা হবে, তা নিয়ে বড় সমস্যায় পড়েছে তারা।

২০২২ সালের মধ্যে সচল পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলো বন্ধ করা হবে। আর এসব বন্ধ হওয়া কেন্দ্রগুলোর তেজস্ক্রিয় বর্জ্য কোথায় রাখা হবে তা খুঁজে বের করতে একটি কমিটি গঠন করেছে জার্মান সরকার।

কমিটির সদস্য টেকনিক্যাল ইউনিভারসিটি অব মিউনিখের অধ্যাপক মিরান্দা শ্রেয়র্স বলেন, জার্মানির সামনে এটা বড় চিন্তার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। এখন প্রায় দুই হাজার উচ্চমাত্রার বিকিরণসম্পন্ন পারমাণবিক বর্জ্য ধ্বংসের জন্য জায়গা খোঁজা হচ্ছে।

জার্মানির হাতে সময় রয়েছে ২০৩১ সাল পর্যন্ত। এর মধ্যেই এসব ক্ষতিকর মারণবর্জ্য ধ্বংসের জন্য একটি স্থান খুঁজে বের করতে হবে।
জার্মানির অর্থনীতি ও জ্বালানি বিষয়ক মন্ত্রণালয় বলেছে, আমাদের সামনে এখন একটাই লক্ষ্য, চূড়ান্ত একটি ধ্বংসস্থান বের করা যেখানে মিলিয়ন বছর ধরে এই বর্জ্যগুলো নিরাপদে থাকবে।