১০ দিনে ৪০০ কোটি

সোমবার, সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৯

বিনোদন ডেস্ক : ‘বাহুবলী’র পর আপাতত ‘সাহো’ জ্বরে কাঁপছেন প্রভাসপ্রেমীরা। হিন্দি, তামিল, তেলেগু ও মালায়ালাম ভাষায় নির্মিত হয়েছে সিনেমাটি। ৩০ অগস্ট ভারতের প্রায় সাত হাজার পর্দায় মুক্তি পেয়েছে প্রভাস-শ্রদ্ধা জুটির সিনেমা ‘সাহো’। এর মধ্যে দক্ষিণে ২ হাজার ৭০০ এবং হিন্দি ভাষায় ৪ হাজার পর্দায় মুক্তি পেয়েছে এটি।

সিনেমা মুক্তির আগেই বাণিজ্য বিশ্লেষকরা জানিয়েছিলেন, ছবি মুক্তির প্রথম দিনেই তেলুগু ভাষায় ১৫ কোটি, তামিলে ১৫ কোটি, মালায়লমে ৩-৫ কোটি এবং অন্যান্য ভাষা মিলেয়ে ‘সাহো’র মোট ব্যবসার পরিমান হতে পারে ৬০-৭০ কোটি রুপি। সেই ধারণায় সত্যি হয়েছে। মুক্তির পর দর্শক-সমালোচকদের কাছ থেকে মিশ্র প্রতিক্রিয়া পেলেও বক্স অফিসে শুরুটা বেশ ভালো করেছে ‘সাহো’।

বক্স অফিস বিশ্লেষকদের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, প্রথম দিনে সকল ভাষা থেকে ৭৫-৮০ কোটি রুপি আয় করেছে সিনেমাটি। এর মধ্যে তেলেগু ভাষায় সিনেমাটির আয় প্রায় ৫০ কোটি রুপি। এছাড়া হিন্দি থেকে আয় হয়েছে ২৪ কোটি রুপি। যুক্তরাষ্ট্র থেকে ১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার বক্স অফিসে যোগ করেছে এটি। বিশ্বব্যাপী এর আয় হয় ১৩০ কোটি রুপি।

এরইমধ্যে সিনেমা মুক্তির সপ্তাহ পার হয়েছে। সপ্তাহ শেষে বিশ্বব্যাপী সিনেমাটির আয় হয়েছে ৩৭০ কোটি রুপি। আর ১০ দিনে সিনেমাটির আয় ছাড়িয়েছে ৪০০ কোটি রুপি।

তবে হিন্দিতে ‘সাহো’ সিনেমাটি হিট হতে হলে আয় করতে হবে ১৩০ কোটির উপরে। ১১৫ কোটি আয় করলে এটি অ্যাভারেজ ব্যবসা করেছে বলে বিবেচিত হবে। সাতদিনে হিন্দিতে ‘সাহো’ আয় করেছে ১১৬.৩ কোটি রুপি।

সাহো প্রযোজনা করেছে ইউভি ক্রিয়েশন্স। এটি পরিচালনা করেছেন সুজিত। প্রভাস-শ্রদ্ধা ছাড়াও এতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন- নীল নীতিন মুকেশ, জ্যাকি শ্রফ, চাংকি পান্ডে, এভেলিন শর্মা, মহেশ মাঞ্জরেকর, ভেনেলা কিশোর প্রমুখ। সিনেমাটির বাজেট ৩৫০ কোটি রুপি।