রিকশা চেপে মঙ্গল অভিযানে বিদ্যা!

শুক্রবার, আগস্ট ৯, ২০১৯

বিনোদন ডেস্ক : রিকশা যাঁদের প্রিয় বাহন, তাঁরা না হয় এবার নড়েচড়েই বসুন। রিকশা করেই এখন মঙ্গলগ্রহে পাড়ি দেওয়া সম্ভব। বিশ্বাস হচ্ছে না?

লোকে বলে, ইচ্ছাশক্তি দ্বারা সবকিছু জয় করা সম্ভব। এবার তাই রিকশায় চেপে মঙ্গল অভিযানের স্বপ্ন দেখছেন বলিউড অভিনেত্রী বিদ্যা বালান। তাঁর দাবি, রিকশা করে কেবল মঙ্গল নয়, যেকোনো জায়গায় যাওয়া সম্ভব। ভারতের মহাকাশ গবেষণা সংস্থার (আইএসআরও) বিজ্ঞানী বিদ্যা ইচ্ছাশক্তিতে বলীয়ান হয়েই তাই রিকশা চেপে চলে যান মঙ্গলে। এমনই অতিমানবীয় সফলতার গল্প উঠে এসেছে অক্ষয় কুমার-বিদ্যা বালান অভিনীত ‘মিশন মঙ্গল’ সিনেমায়। সিনেমাটিতে প্রায় অসাধ্য এক কাজ করে দেখান তিনি। সিনেমাটিতে বিদ্যা অভিনয় করেছেন তারা শিন্ডে নামক এক চরিত্রে।

ট্রেইলার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে অক্ষয় বলেছেন, “সিনেমাটিতে কাজ করার আগে আমরা মার্স অরবিটার মিশন (এমওএম) সম্পর্কে পর্যাপ্ত জানতাম না। মঙ্গলগ্রহে আমেরিকান ম্যাভেন অরবিটার পাঠাতে নাসার ব্যয় হয়েছিল প্রায় ছয় হাজার কোটি রুপি, আমাদের হয়েছিল মাত্র ৪৫০ কোটি রুপি। আমার সিনেমা ‘টু পয়েন্ট জিরো’র বাজেট ছিল ৫০০ কোটি, কিন্তু মঙ্গল অভিযানে এর চেয়েও কম বাজেট ছিল। আমরা ভীষণ গর্বিত।”

আর ছবির ট্রেলারে আইএসআরও বিজ্ঞানীদের মঙ্গল অভিযানের নেতৃত্ব দিতে দেখা যাচ্ছে অক্ষয় কুমারকে। সিনেমাতে অক্ষয়ের চরিত্রের নাম রাকেশ।

কীভাবে একটি দেশ লাল গ্রহ মঙ্গলে যাওয়ার স্বপ্ন দেখে? কী ছিল তাদের প্রথম পদক্ষেপ? সে অভিযানে বিপুল অর্থ আসবে কোথা থেকে? এ সিনেমায় অসম্ভব এক স্বপ্নকে বাস্তবে পরিণত করার গল্পই শোনাবেন বলিউড তারকা অক্ষয় কুমার, বিদ্যা বালান ও তাঁদের বিজ্ঞানীদল। ছবিটি ১৫ আগস্ট ভারতের স্বাধীনতা দিবসের দিন মুক্তি পাবে। এতে অভিনয়ে রয়েছেন অনেক তারকা।

অক্ষয় কুমার, বিদ্যা বালান, সোনাক্ষি সিনহা, তাপসী পান্নু, কীর্তি কুলহরি, নিথিয়া মেনন ও শারমান জোশি চালিয়েছেন সে অভিযান। ট্রেলারে দেখানো হয়েছে, কীভাবে ভারতীয় বিজ্ঞানীরা অসম্ভবকে সম্ভব করে জয় করেছেন মঙ্গলগ্রহ। আরো দেখানো হয়েছে, নারী বিজ্ঞানীদের বিজয়গাথা। মঙ্গলযাত্রায় অক্ষয়ের পাশে থেকে স্বপ্নপূরণে সাহায্য করেছেন এই নারীরা। সূত্র : জি নিউজ