বাংলাদেশে যা কিছু হয়েছে, সবই ছাত্রলীগের অবদান: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

শনিবার, জুলাই ২০, ২০১৯

জবি : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, ‘বাংলাদেশে যা কিছু হয়েছে সবই ছাত্রলীগের হাত ধরে এসেছে। সব কিছুই ছাত্রলীগের অবদান। বায়ান্নর ভাষা আন্দোলন, চুয়ান্নর আন্দোলন, ছয় দফা আন্দোলন সব কিছুতেই ছাত্রলীগের অবদান রয়েছে।’

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) ছাত্রলীগের দ্বিতীয় বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

শনিবার (২০ জুলাই) জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞান ভবন অনুষদে এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলন শুরুর নির্ধারিত সময় সকাল ১১টায় দেয়া থাকলেও ছাত্রলীগের দুই শীর্ষ নেতার দেরিতে আসার কারণে সম্মেলন শুরু হয় বিকেল তিনটায়। সম্মেলনের নির্ধারিত সময়ে এসে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ছাত্রলীগের শীর্ষ দুই নেতার জন্য অপেক্ষা করেন।

সম্মেলনে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘ছয় দফা আন্দোলনের সময় তৎকালীন জগন্নাথ কলেজের ছাত্রলীগের নেতারা মিছিল না করলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নেতৃবৃন্দ আন্দোলন করতে পারতো না। তখন থেকেই জগন্নাথ কলেজ ও পর্যায়ক্রমে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের শক্ত একটি ঘাঁটি এবং আগামীতেও এটা বজায় থাকবে। ছাত্রলীগের মধ্য থেকেই আমাদের ভবিষ্যৎ নেতৃত্ব তৈরি হবে। ২০৪০ এ আমরা উন্নত বাংলাদেশে পৌছে যাবে। তখনকার নেতৃত্ব দিবে ছাত্রলীগের নেতারা। নতুন নতুন নেতারা এসে আমাদের স্থান পূরণ করে দিবে।’

পরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটিকে উদ্দ্যেশ করে নতুন নেতা নির্বাচনের ক্ষেত্রে অবশ্যই যাদের ছাত্রত্ব আছে এমন ব্যক্তিকে করার প্রতি আহ্বান জানান। যেই জবি ছাত্রলীগের নেতৃত্বে আসুক না কেনো তাকে মেনে নিয়ে সবাইকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার জন্য অনুরোধ করেন তিনি। পাশাপাশি বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত করার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ‘ভ্যানগার্ড’ হিসেবে তাঁর (শেখ হাসিনার) পাশে থাকার জন্যও বলেন তিনি।

জবি ছাত্রলীগের সম্মেলন প্রস্তুত কমিটির আহ্বায়ক, শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি আশরাফুল ইসলামের সভাপতিত্বে জবি ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি জামাল উদ্দিনের সঞ্চালনায় সম্মেলন উদ্ধোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রেজয়াওনুল হক চৌধুরী শোভন। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।

উক্ত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য এ্যাডভোকেট কাজী নজীবুল্লাহ হীরু, ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম বাবু, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি বাচ্চু মিয়া, সাবেক সভাপতি কামরুল হাসান রিপন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক গাজী আবু সাঈদ।