ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’র প্রভাবে গুজরাটে ঝড়, নিহত ৬

বৃহস্পতিবার, জুন ১৩, ২০১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : আর কিছুক্ষণের মধ্যেই ভারতের উপকূলে আছড়ে পড়তে চলেছে ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’। এরই মধ্যে গুজরাট রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় এই ঝড়ের প্রভাব পড়তে শুরু করে দিয়েছে। শুরু হয়েছে প্রবল ঝড়ো হাওয়া।

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ঝড়ের প্রভাবে ছয়জন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে গুজরাটের নর্মদায় দুজন, তাপিতে দুজন, দাং এলাকায় একজন ও গান্ধীনগরে একজন নিহত হয়েছেন।

আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে জানানো হয়েছে, ঝড়ের গতিমুখ কিছুটা পরিবর্তন হয়ে গুজরাট উপকূলের ভেরাভাল ও দ্বারকার মাঝামাঝি এলাকায় ১৭০ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানতে পারে। ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’র প্রভাবে মহারাষ্ট্র ও গোয়া রাজ্যেও শুরু হয়েছে প্রবল ঝড়বৃষ্টি। মহারাষ্ট্র সরকার সেখানকার সব সমুদ্রসৈকত বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে।

গুজরাট রাজ্যের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এরই মধ্যে গুজরাটের উপকূলীয় এলাকা থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে তিন লাখ ১০ হাজার মানুষকে। বাতিল করা হয়েছে বহু ট্রেন। গতকাল বুধবার সন্ধ্যা ৬টা থেকেই ট্রেন বাতিল করা হয়। রেল কর্তৃপক্ষের ভাষ্যমতে, প্রায় ১১০টির মতো ট্রেন বাতিল করা হয়েছে। ২৮টি ট্রেনের যাত্রাপথ সংক্ষিপ্ত করা হয়েছে। মাত্র দুটি ট্রেন গুজরাটের ওখা থেকে সৌরাষ্ট্র পর্যন্ত যাতায়াত করছে, যাতে ওই ট্রেন দুটিতে করে এলাকা ছাড়তে পারেন বাসিন্দারা। আগামী ১৪ জুন পর্যন্ত ট্রেনগুলো বাতিল থাকবে বলে রেলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

ঝড়ের কারণে গুজরাটের বিমান চলাচলেও প্রভাব পড়েছে। রাজ্যের পোরবন্দর, দিউ, ভাবনগর, কেশোদ, কান্দালারসহ একাধিক বিমানবন্দরে গতকাল মধ্যরাত থেকে আজ বৃহস্পতিবার মধ্যরাত পর্যন্ত বিমান চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে। উপকূলের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

অন্যদিকে, ভারতের কেন্দ্রশাসিত দিউ থেকে ১০ হাজার মানুষকে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।