সঙ্গীর মনোযোগ আকর্ষণে…

রবিবার, মে ১৯, ২০১৯

লাইফস্টাইল ডেস্ক : সঙ্গী মাঝেমধ্যেই অমনোযোগী হয়ে পড়েন। এ বিষয়টি কেউ মেনে নিতে পারেন না। বিশেষ করে মেয়েরা এটা একদমই মানতে চাননা। স্বামী যদি ভিডিও গেম খেলা বা সিনেমাতেই বেশি ব্যস্ত থাকেন এবং আপনার দিকে খেয়ালই না থাকে, তাহলে কার ভালো লাগে? তবে এর বিপরীতে মেজাজ খারাপ করা বা ঝগড়া করলেই সমাধান আসবে না। এ ধরনের সঙ্গীর সঙ্গে মানিয়ে চলতে শিখুন এভাবে-

১. আপনার প্রতি তিনি অমনোযোগী। এ কারণে তার মনে অযথাই কোনো উপায়ে হিংসা সৃষ্টির চেষ্টা করবেন না। বহু পুরনো মনের খেলা এটা। সঙ্গীর মনোযোগ কাড়তে আপনার কোনো বন্ধুর সঙ্গে মোবাইলে আলাপ শুরু করে দিলেন, এটা মোটেও ভালো কিছু বয়ে আনবে না। এমনও হতে পারে, বিষয়টি ভিন্ন দৃষ্টিতে দেখা শুরু করলেন তিনি।

২. মেয়েরা এ কাজটি করতে চান না। কিন্তু সবচেয়ে ভালো উপায় এটাই। তার সঙ্গে অভিযোগ নিয়ে কথা বলুন। আপনার কাছে যে বিষয়টি খারাপ লাগছে তা স্পষ্ট করে তুলুন। এতে সমাধানের পথ উন্মুক্ত হবে।

৩. যদি বাস্তবিক হতে পারেন, তাহলে আরো ভালো। এটা মেনে নিতে পারেন যে, ছেলেরা একটু এমনই হয়। যে কারণে সঙ্গী মনোযোগ হারিয়েছেন, খুব দ্রুত সেখান থেকে বেরিয়ে আসবেন। আর যদি তার বৈশিষ্ট্যই এমন হয়, তবে তা মেনে নেওয়া ভালো।

৪. আবার ছেলেরা সব সময় এমন নন। দেখবেন আপনার অনেক কিছুই নজরে পড়ছে তার। আপনার যথেষ্ট খেয়াল তিনি রাখেন। কিন্তু হয়তো নতুন রংয়ের লিপস্টিক দিয়েছেন তা খেয়াল করলেন না। অথবা নতুন কোনো অলংকার আপনাকে কেমন দেখাচ্ছে তা হয়তো নিজে থেকে বললেন না। এমন কিছু বিষয় ছেড়ে দিলেই ভালো হবে।

৫. আর যদি এমন হয় যে আপনার সঙ্গীর এমন আচরণ অন্যের চেয়ে বেশি। তাহলে তাকে বদলে ফেলার দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে লাভ নেই। এ ক্ষেত্রে নিজের জীবনটাকে বদলে নিন। আর তার বিরুদ্ধে এই অভিযোগকে গায়ে মাখবেন না।

৬. আরেকটি বুদ্ধি করতে পারেন। সঙ্গীর সঙ্গে বেশি বেশি সময় কাটাতে শুরু করুন। এতে তার মস্তিষ্কে সমস্যাটি ধরা দেবে। তিনি বুঝতে পারবেন যে আপনার প্রতি একেবারেই খেয়াল দেওয়া হচ্ছে না।

৭. এটা অন্তিম দশা হতে পারে। যদি তার এই অমনোযোগিতা উদ্দেশ্যমূলক বা আপনাকে হেয় করার জন্যে হয়ে থাকে, তাহলে আপনাকে বিকল্প ভাবতে হবে। তার সঙ্গে সরাসরি কথা বলুন এবং প্রয়োজনে বিচ্ছেদও ভালো কিছু বয়ে আনতে পারে।

সূত্র : ইন্টারনেট