কালকিনিতে দুই কিশোরীকে ফ্ল্যাটে আটকে রেখে ধর্ষণ

শনিবার, এপ্রিল ৬, ২০১৯

মাদারীপুর: মাদারীপুরের কালকিনির বালিগ্রাম ইউনিয়নের পূর্ব বোতলা গ্রামের দুই কিশোরীকে একটি বাড়ির ফ্ল্যাটে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা চালাচ্ছেন স্থানীয় মাতবররা।

গতকাল শুক্রবার গভীর রাতে চারজনকে আসামি করে থানায় মামলা করেছে ভুক্তভোগী পরিবার।

শনিবার সকালে পুলিশ ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য পাঠিয়েছে।

এলাকাবাসী, ভুক্তভোগী পরিবার ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বালিগ্রাম এলাকার বোতলা গ্রামের পঞ্চম ও সপ্তম শ্রেণিতে পড়ুয়া দুই কিশোরীকে একই এলাকার আটিপাড়া গ্রামের মজিবর হাওলাদারের বখাটে ছেলে শাকিব (১৯) ও একেই গ্রামের মুনসুরের ছেলে রবিউল (২৪) ও তাদের বন্ধু নয়ন ও আল-আমিনের সহযোগিতায় একটি নির্জন ফ্ল্যাটে নিয়ে যায়। এ সময় শাকিব ও রবিউল তাদের ওপর পাশবিক নির্যাতন চালায়।

বৃহস্পতিবার রাতে বিষয়টি টের পেয়ে স্থানীয়রা এগিয়ে এলে বখাটেরা পালিয়ে যায়। পরে তাদের ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার করা হয়। তবে ঘটনার পর থেকে ওই ফ্ল্যাটে তালা দিয়ে সবাই গাঁ ঢাকা দিয়েছে। পরে ডাসার থানা পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে।

এ ঘটনায় এক কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে চারজনকে আসামি করে ডাসার থানায় একটি মামলা করেন।

ধর্ষণের শিকার এক কিশোরীর মা অভিযোগ করে বলেন, ‘আমরা গরিব মানুষ তাই আমাদের পক্ষে কেউ নেই। আমার মেয়ে ও আরেক মেয়ে বুধবার স্কুলে যায়। এরপর আমরা তাদের বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করেও পাইনি। পরে বৃহস্পতিবার রাতে শুনি স্থানীয়রা আমার মেয়েসহ আরেক মেয়েকে এক ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় কিছু মাতবর সালিশ মীমাংসা করে দেয়ার কথা বলে আমাদের মামলা করতে দেয়নি বলে তিনি জানান।

ডাসার থানার এসআই মো. দেলোয়ার হোসেন বলেন, নির্যাতনের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। একজন কিশোরীকে মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।