বিএনপি নেতাকর্মীদের তোপের মুখে সুলতান মনসুর

মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ১১, ২০১৮

মৌলভীবাজার : মৌলভীবাজার-২ (কুলাউড়া) নির্বাচনী এলাকায় স্থানীয় বিএনপি নেতাকর্মীদের তোপের মুখে পড়েছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম শীর্ষ নেতা ও সাবেক সাংসদ সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ। নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে গিয়ে জিয়া পরিবারের কারো ছবি ব্যবহার না করায় ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন তারা। এছাড়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠেছে।

ফেসবুকে সুলতান মনসুরের প্রধান নির্বাচনী কার্যালয়ের ছবি দিয়ে ছাত্রদল নেতা তাহমিদ খান শাওন লিখেছেন, যা হওয়ার হয়ে গেছে, এখন ভুলগুলো শুধরে নেয়া হোক। নির্বাচনী কার্যালয়ের প্রধান গেট থেকে অবিলম্বে এই ব্যানার সরিয়ে খালেদা, তারেক জিয়ার ছবি সম্বলিত ধানের শীষের ব্যানার রাখতে হবে। নির্বাচনী পোস্টার যেন তারেক জিয়া এবং খালেদা জিয়ার ছবি থাকে। তা না হলে আমাদেরকে পাবেন না। আপনার বিরুদ্ধে যেতে সময় লাগবে না।

কিবরিয়া চৌধুরী লেখেন, নেতৃবৃন্দের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। নির্বাচনী ব্যানারে দলের প্রতিষ্ঠাতা শহীদ জিয়ার ছবি নেই, নেই বেগম খালেদা জিয়া ও তারেক জিয়ার ছবি। কিন্তু সবচেয়ে বেশি দুঃখ লাগে বিএনপির কিছু অতি উৎসাহীরা দলের প্রতীকের প্রচারণা না করে ব্যক্তির প্রচারণা শুরু করেছেন। তাদের মনে রাখা উচিত, ব্যক্তি ক্ষণস্থায়ী কিন্তু প্রতীক স্থায়ী।

সাইফুর রহমান লিখেছেন, ঘরে বসে ভোট দেবো ধানের শীষে, সকল কর্মকাণ্ড বর্জন করবে জিয়ার সৈনিকেরা। পাশে বসে পরিচালনা করছেন দালাল প্রকৃতির কিছু বিএনপি নেতা তাদের এসব কী চোখে পড়ে না।

তিনি ছাত্রদল, যুবদল, বিএনপি ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দকে পোষ্টার না লাগাতে অনুরোধ করেন। শামীম আহমেদ লিখেন, মনেতে কি নতুন পোষ্টার লাগানো যাবে?

একেএম ফজলুল হক রুবেল লেখেন, যারা ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচন করবেন, তারা যদি নেত্রীর ছবি পোষ্টারে ব্যবহার না করে, তাহলে আমি ব্যক্তিগতভাবে সমর্থন করব না।

জিয়াউদ্দিন মো. ইউছুফ লেখেন, নেত্রীর ছবি নাই, তাই নকল ধান ছড়া। ভোট দেব না। কোদাল মার্কায় ভোট দেব।