সরকারের মাথা খারাপ হয়ে গেছে: নজরুল

বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ২৯, ২০১৮

ঢাকা: জাতীয় ঐক্যফ্রন্টসহ ২০ দলীয় জোট নির্বাচনে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়ার পর থেকেই সরকারের মাথা খারাপ হয়ে গেছে মন্তব্য করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির প্রধান নজরুল ইসলাম খান।

তিনি বলছেন, ‘মনোনয়ন জমা দিতে আমাদের নেতাকর্মীদের পদে পদে বাধা দেয়া হচ্ছে। ছোট থেকে বড় সবাইকে আসামি করা হচ্ছে।অনেকেই নিখোঁজ হচ্ছে। এগুলো সবই সুষ্ঠু নির্বাচনের অন্তরায়।’

বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১১টায় নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

নজরুল বলেন, ‘আওয়ামী লীগ একের পর এক ফাউল করছে। সরকার ও ইসি নিশ্চুপ ভূমিকা পালন করছে। নির্বাচন কমিশন সরকারের সহায়ক ভূমিকা পালন করছে। এভাবে চলতে থাকলে সুষ্ঠু নির্বাচন হতে পারে না।’

বিএনপির এই নীতিনির্ধারক অভিযোগ করে বলেন, ‘২০১৪ সালের মতো আরও একটি প্রহসনের নির্বাচন করতে সরকার গ্রেফতার বাণিজ্য অব্যাহত রেখেছে। তিনমাস পূর্বে মিথ্যা ও গায়েবি মামলায় গ্রেফতার হয়ে কারান্তরীণ তেজগাঁও থানা ছাত্রদলের নেতা আব্দুল্লাহ আল তামিম গাজীপুর জেলে গতকাল মৃত্যুবরণ করেছে। কারা কর্তৃপক্ষের অবহেলা ও সরকারের নির্যাতনেই তার মৃত্যু হয়েছে।’

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘কোন যুদ্ধপরাধীকে আমরা ধানের শীষ প্রতিক দিবো না এটা আপনাদেরকে আশ্বস্ত করতে পারি। আর তাছাড়া জামায়াতের মধ্যে অনেক মুক্তযোদ্ধাও আছে।’

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘অন্য নেতাদের পক্ষে কাজ করার জন্য অনেক সিনিয়র নেতা মনোনয়ন জমা দেননি। এটাকে আপনারা নির্বাচনী কৌশলও বলতে পারেন।’