আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে যুবলীগ নেতা খুন, আহত-২

বুধবার, নভেম্বর ২৮, ২০১৮

লালপুর (নাটোর) প্রতিনিধি : নাটোরের লালপুর উপজেলার নর্থ বেঙ্গল সুগার মিল এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের বিবাদমান দু’টি গ্রুপের দ্বন্দের জের ধরে থানা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাহারুল ইসলাম (৩৫) ধারলো অস্ত্রের আঘাতে খুন হয়েছেন।

এ সময় তার সাথে থাকা তুহিন ও পান্তু নামের অপর দুই জন আহত হয়েছে। বুধবার (২৮ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে নর্থ বেঙ্গল সুগার মিলের ২ নং গেটের অদুরে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত জাহারুলকে প্রথমে লালপুর হাসপাতালে ও পরে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে বেলা একটার দিকে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত জাহারুলের ছোট ভাই রেজাউল তার মৃত্যুর ঘটনা নিশ্চিত করেন। জাহারুল ইসলাম সিরাজীপুর গ্রামের মৃত লুৎফর মোল্লার ছেলে।

জানাগেছে দীর্ঘ দিন ধরে নর্থ বেঙ্গল সুগার মিলের ঠিকাদারী কাজ বাগিয়ে নেওয়াকে কেন্দ্র করে যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাহারুল ইসলাম ও প্রতিপক্ষ স্থানীয় গ্রুপের সাথে দ্বন্দ চলছিল।

বুধবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে জাহারুল ও তার সহযোগি দুই জন মোটর সাইকেলে করে গোপালপুর রেলগেট থেকে মিলের দিকে যাওয়ার পথে উক্ত স্থানে পৌছালে প্রতিপক্ষরা হামলা চালিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে যখম করে। পরে বেলা ১টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক জাহারুলকে মৃত্যু ঘোষনা করে।

লালপুর হাসপাতালের চিকিৎসক মজিবুল হক সবুজ জানান, নিহত জাহারুলের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে মারাত্বক জখম রয়েছে এছাড়া তার দুই পায়ের রগ কেটে দেওয়া হয়েছে।

ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ ৬ টি মোটর সাইকেল জব্দ করেছে। আহত অপর দুই জন হলো বিরোপাড়া গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে তুহিন (৩২) ও বাওড়া গ্রামের বাবলু হোসেনের ছেলে পান্থ (৩০)।

তাদেরকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এঘটনার পর লালপুর থানা পুলিশ উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য ফিরোজ আল হক ভূইয়াকে জিঙ্গাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে আসে।

জাহারুল ইসলাম নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শহিদুল ইসলাম বকুলের সমর্থক এবং হামলাকারীরা আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বঞ্চিত বর্তমান সংসদ সদস্য এ্যাড. আবুল কালামের সমর্থক বলে জানাগেছে।

লালপুর থানার ওসি নজরুল ইসলাম জুয়েল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।