উৎসবের শেষে রূপচর্চা

শুক্রবার, অক্টোবর ১৯, ২০১৮

লাইফস্টাইল ডেস্ক : আজ দশমির মধ্য দিয়ে শেষ হচ্ছে শারদীয় দুর্গাপূজার উৎসব। উৎসবের এ কয়টা দিন অনেকটাই ধকল গেছে ত্বকের ওপর দিয়ে। এবার শুরু করুন উৎসব শেষে রূপচর্চা। এখানে কিছু টিপস দেয়া হলো যেগুলো করলে ত্বকের স্বাস্থ্য আবারো ফিরবে। তাহলে চলুন দেখে নেয়া যাক টিপসগুলো –

ত্বকের যত্নে
পর পর তিনদিন ফেইশল স্কার্ব ব্যবহার করুন। চালের গুঁড়া সঙ্গে দই মিশিয়ে মুখে লাগিয়ে ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে মালিশ করুন ৫ মিনিট। এরপর আরো ৫ মিনিট রেখে পানি দিয়ে ভালো করে ধুয়ে নিন।

তারপর ত্বকের ধরন অনুযায়ী যে কোনো মাস্ক ব্যবহার করুন। অথবা নিজেই বানিয়ে নিন মাস্ক।

২ চা-চামচ দুধ, ১ চা-চামচ মধু, ১ চা-চামচ ডিমের সাদা অংশ, এক চা-চামচ ময়দা বা বেসন মিশিয়ে নিয়ে মুখে লাগিয়ে ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। সেই সঙ্গে প্রতিদিন ২ চা-চামচ দুধ, ১ চা-চামচ মধু, ১ চা-চামচ লেবুর রস মিশিয়ে ব্যবহার করুন।

চুলের যত্নে
২ চা-চামচ, মধু ১ চা-চামচ অলিভ অয়েল, ২ চা-চামচ মেথিগুঁড়া, ১টি ডিম ফেটিয়ে সব উপকরণ একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। শ্যাম্পু করা চুলে এই প্যাক লাগিয়ে ১ ঘন্টা রেখে দিন। এরপর আবার শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে কন্ডিশনিং করুন। এই প্যাকটি একবার ব্যবহারেই চুল ফিরে পাবে তার প্রাণবন্ত চেহারা।

হাত-পায়ের যত্নে
২ টেবিল-চামচ লেবুর রস, ১ টেবিল-চামচ চিনি, ১ চা-চামচ মধু মিশিয়ে গোসলের আগে হাত-পাসহ পুরো শরীর স্ক্রাবিং করুন। এতেই পুরো শরীর এবং সেইসঙ্গে হাত-পায়ের রুক্ষভাব কেটে যাবে।

একবার ব্যবহারে ত্বক খুব ভালো পরিষ্কার হয়। এভাবে পর পর কয়েকদিন গোসলের সময় স্ক্রাবিং করুন। হাত-পা মোলায়েম হয়ে যাবে।

ঠোঁটের যত্নে
প্রতি রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ঠোঁটে আমন্ড অয়েল দিয়ে হালকা করে মালিশ করুন। কয়েকদিনেই ঠোঁটে আসবে গোলাপি আভা।

চোখের যত্নে
ব্যবহার করা টি ব্যাগ ফ্রিজে রেখে ঠান্ডা করে চোখের উপর দিয়ে ২০ মিনিট আরাম করুন। এতে চোখের ক্লান্তি কেটে যাবে।

তবে ঘরে এত ঝামেলা করতে না চাইলে যে কোনো ভালো বিউটি স্যালুনে গিয়ে এক দিনে দু-তিন ঘন্টা সেবা নিলেই শরীরের সমস্ত অবসাদ কেটে যাবে।