প্রেমে প্রতারিত হওয়ার অহেতুক সংশয় ?

বুধবার, অক্টোবর ১৭, ২০১৮

লাইফ্টাইল ডেস্ক : ম্যাসেঞ্জারে মেসেজ পাঠিয়েছেন প্রেমিককে, অথচ তিনি দেখছেনই না বা দেখলেও উত্তর দিচ্ছেন না! বা ফোন করছেন না নিজে থেকে। দেখাসাক্ষাতের প্রস্তাবেও বিশেষ উৎসাহ আসছে না ওদিক থেকে। এরকম পরিস্থিতিতে অনেক মেয়েই ধরে নেন, প্রেমিক হয়তো প্রতারণা করছেন তাঁকে। অনেকে আবার পুরোনো প্রেমের তিক্ত অভিজ্ঞতার সঙ্গে বর্তমান সম্পর্কটা মেলাতে থাকেন। মিল পেলেই তাঁরা ধরে নেন, ফের সঙ্গী প্রতারিত করছেন তাঁকে। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই এইধরনের সন্দেহের কোনও ভিত্তি থাকে না। ফলে লাভ তো কিছু হয়ই না, উলটে নতুন করে সম্পর্কে অশান্তি দেখা দেয়। তাই সঙ্গীর উপর আস্থা রাখুন, অহেতুক সন্দেহ, প্রতারিত হওয়ার ভয় এড়িয়ে চলুন।

অতীতকে ভুলে যাওয়ার চেষ্টা করুন
নতুন সম্পর্কে সুখী হওয়ার এটাই প্রথম ধাপ। বারবার একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটবে, এমনটা ধরে নেওয়ার কোনও কারণ নেই। পুরোনো স্মৃতি ভুলে নতুন করে সব কিছু শুরু করুন।

নেতিবাচক চিন্তা থেকে দূরে থাকুন
কখনও মনের মধ্যে সম্পর্ক নিয়ে অনিশ্চয়তা দানা বাঁধলে সচেতনভাবে তা থেকে বেরোনোর চেষ্টা করুন। পরিস্থিতি যুক্তি দিয়ে খতিয়ে দেখুন, প্রয়োজনে বন্ধুদের সাহায্য নিন।

খোলাখুলি কথা বলুন
মনের মধ্যে অশান্তি আর সংশয় পুষে রাখবেন না। কোন কোন বিষয় নিয়ে আপনার সমস্যা হচ্ছে, সে ব্যাপারে সঙ্গীকে খোলাখুলি জানান। একসঙ্গে বসে আলোচনা করলে অনেক সমস্যারই সমাধান খুঁজে পাওয়া সম্ভব।

সবসময় ষষ্ঠ অনুভূতিকে বাড়তি গুরুত্ব নয়
ষষ্ঠ অনুভূতি বা ইনস্টিঙ্কট নিয়ে অনেক কথা বলা হয়। কিন্তু মনে রাখতে হবে, এই ষষ্ঠ অনুভূতি কিন্তু অনেক ক্ষেত্রেই পূর্ব অভিজ্ঞতার উপর নির্ভর করে। আপনার হয়তো মনে হচ্ছে আপনার সঙ্গী কিছু একটা গোপন করতে চাইছেন, কিন্তু তার মানেই যে তিনি আপনাকে প্রতারিত করছেন, এমন নাও হতে পারে। এ ক্ষেত্রে যুক্তি আর বুদ্ধি দিয়ে পরিস্থিতি বিচার করুন।

চিকিৎসকের সাহায্য নিন
কোনও কিছুতেই কাজ না হলে চিকিৎসকের সাহায্য নিতেই হবে। সাইকোলজিকাল কাউন্সেলিংয়ের সাহায্যে অমূলক সন্দেহ আর সংশয় দূর করা সম্ভব।